উখিয়া

উখিয়ায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানে প্রায় ৫ লাখ টাকা জরিমানা আদায়

নিজস্ব প্রতিবেদক :
উখিয়া উপজেলার বিভিন্ন স্থানে ভেজালবিরোধী ভ্রাম্যমাণ আদালত অভিযান চালিয়ে ৪ লাখ ৯১ হাজার ৫শ টাকা জরিমানা করেছে।

অপরিচ্ছন্ন পরিবেশে খাবার বিক্রি, অবৈধভাবে ব্যবসা পরিচালনা, নকল পণ্য রাখার অভিযোগে তাদের এই জরিমানা করা হয়।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ নিকারুজ্জামান চৌধুরীর নেতৃত্বে শনিবার এ অভিযান পরিচালনা করা হয়।

এসময় পালংখালী ইউসুফ এন্ড ব্রাদার্স ফিলিং স্টেশনকে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষন আইন-২০০৯ এর ৫২ ধারায় এক লক্ষ টাকা, বালুখালী ডিজিটাল ল্যাব এন্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টারকে এক লক্ষ টাকা, থাইংখালী এলাকার আবুল কালামের খাবারের হোটেলকে ১০ হাজার টাকা, ফরিদুল আলমের খাবারের হোটেলকে ৫ হাজার টাকা,মো: হোসাইনের খাবারের হোটেলকে ৫ হাজার টাকা, উখিয়া সদরের নুর হোটেলকে এক লক্ষ টাকা, আল মামুন খাবার হোটেলকে ৫০ হাজার টাকা, জামতলী রোহিঙ্গা ক্যাম্প এলাকায় সুমন ধরের স্বর্ণের দোকানকে ২০ হাজার টাকা, ভোক্তা অধিকার সংরক্ষন আইন-২০০৯ এর ৪২ধারায় জামতলী রোহিঙ্গা ক্যাম্প এলাকার নুরুল কবিরের ষ্টেশনারী দোকানকে ৫০ হাজার টাকা,হামিদুর রহমানের ষ্টেশনারী দোকানকে ৫০ হাজার টাকা, দ: বি: ১৮৬০ এর ২৯১ এর ধারা অনুযায়ী সীলেরছড়া এলাকার মো: আইয়াজকে ১ হাজার ও একই এলাকার তারকেুর রহমানকে ৫শ টাকা জরিমানা করা হয়। এসময় বিপুল পরিমাণ নকল পণ্য জব্দ করে ধ্বংস করা হয় এবং আইন লঙ্ঘনের অপরাধে দ: বি: ১৮৬০ এর ২৯১ এর ধারায় ইনানী এলাকার আবু তাহেরের ছেলে জুনাইদকে এক মাসের ও করাত-কল (লাইসেন্স) বিধিমালা-২০১২এর (৭)১(ক) ধারা য় পালংখালী এলাকার মকবুল হোসেনের ছেলে মো: আনোয়ার হোসেনকে দুই মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড দেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা স্যানিটারি ইন্সপেক্টর ও নিরাপদ খাদ্য পরিদর্শক মোঃ নুরুল আলম সহ উপজেলা প্রশাসন।

ভুক্তভোগী জনসাধারণ উপজেলা নির্বাহী অফিসারের এ অভিযানকে সময়োপযুগী সিদ্ধান্ত মনে করে সাধুবাদ জানিয়েছেন।

ভ্রাম্যমান আদালত এর নেতৃত্বদানকারী নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ নিকারুজ্জামান চৌধুরী বলেন, বিভিন্ন অভিযোগের প্রেক্ষিতে এসব ব্যবসা প্রতিষ্টানে অভিযান চালিয়ে জরিমানা আদায় করা হয়। অনিয়মের বিরুদ্ধে এই অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে তিনি জানিয়েছেন।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন