কক্সবাজারে ১৩ লাখ ইয়াবাসহ আটক ২

রাইজিং কক্স : বঙ্গোপসাগরে একটি ট্রলারকে ধাওয়া করে ১৩ লাখ ইয়াবাসহ বিল্লাল (৪৫) ও মো. আয়াছ (৩৪) নামে ইয়াবা কারবারীকে আটক করেছে র‌্যাব-১৫। ধাওয়া খেয়ে কক্সবাজার শহর সংলগ্ন মাঝিরঘাট এলাকায় চলে আসা ট্রলারটি গত ২৩ আগস্ট বিকাল ৫টার দিকে জব্দ করা হয়। সেই ট্রলার থেকে চলমান সময়ের সবচেয়ে বড় ইয়াবা চালানটি আটক করতে সক্ষম হয় র‌্যাব।

সোমবার (২৪ আগস্ট) বেলা সাড়ে ১২টায় র‌্যাব-১৫ এর কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনের এসব তথ্য জানান র‌্যাবের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (অপারেশনস) কর্ণেল তোফায়েল মোস্তফা সরোয়ার।

র‌্যাবের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (অপারেশনস) কর্ণেল তোফায়েল মোস্তফা সরোয়ার রাইজিং কক্স-কে জানান, মিয়ানমার থেকে বিপুল পরিমাণ ইয়াবার একটি চালান মাছ ধরার ট্রলারে বাংলাদেশে ঢুকছে এমন খবর পায় র‌্যাব। বৈরি আবহাওয়ায় পাচারের সুবিধাজনক পথ হিসেবে গভীর সাগরকে বেছে নেয় তারা। ট্রলারটি চিহ্নিত করে পেছনে ধাওয়া করে র‌্যাব-১৫ এর পরিচালক আজিম আহমেদের নেতৃত্বে একটি দল।ধাওয়া খেয়ে বোটটি গভীর সাগর থেকে কক্সবাজার শহর সংলগ্ন মাঝিরঘাটে নোঙর করে। সেখানেই বোটটি জব্দ করে র‌্যাব সদস্যরা। বোটে থাকা কক্সবাজার সদরের ঝিংলজা ইউনিয়নের দক্ষিণ হাজিপাড়ার এলাকার মৃত আবদুল মজিদের ছেলে মো. বিল্লাল (৪৫) ও উখিয়ার বালুখালী রোহিঙ্গা ক্যাম্প-১৩ এর এইচ ১৬ ব্লকের বশির আহমদের ছেলে মো. আয়াছ (৩৪)কে আটক করা হয়েছে। তাদের স্বীকারোক্তি অনুযায়ী বোটের গোপন জায়গায় লুকানো অবস্থা থেকে ইয়াবার একটি বিশাল চালান উদ্ধার করা হয়। পরে জানা গেল, সেখানে ১৩ লাখ ইয়াবা রয়েছে।
তিনি আরো বলেন, চালানটি জব্দ করার সময় আটক দুইজনকে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে। জিজ্ঞাসাবাদের তারা জানিয়েছে, ইয়াবার এই বিশাল চালানটি গভীর সাগর হয়ে পাচার করতে মিয়ানমার থেকে আনা হয়েছিল।

চলতি মাসে র‌্যাব-১৫ এ পর্যন্ত ১৫ লাখ ইয়াবা জব্দ করেছে। তাদের এ অভিযানে সমাজের সর্বস্তরের মানুষের অংশগ্রহণ কামনা করেন র‌্যাবের অতিরিক্ত মহাপরিচালক কর্ণেল তোফায়েল মোস্তফা সরোয়ার।

রাইজিংকক্স.কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।