কাশ্মীর ইস্যুতে ভারতের বিরুদ্ধে পাকিস্তানকে পুরোপুরি চীনের সমর্থন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, রাইজিং কক্স ডেস্ক : আন্তর্জাতিক অঙ্গনে কাশ্মীর ইস্যুতে ন্যায়বিচার পেতে ভারতের বিরুদ্ধে পাকিস্তানকে সাহায্য করবে বলে ঘোষণা করেছে চীন।

শুক্রবার পাকিস্তানি পররাষ্ট্রমন্ত্রী শাহ মাহমুদ কুরেশি এবং চীনা পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং য়ি এক জরুরি বৈঠক করার পর চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় একটি বিবৃতিতে এই কথা জানায়।

ভারতের অধিকৃত কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা বাতিলের সিদ্ধান্ত নিয়ে জরুরি বৈঠকটি করেন এই দুই দেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী। খবর পাকিস্তানের গণমাধ্যম ডনের।

চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিটিতে বলা হয়, দেশটি পাকিস্তানের বৈধ অধিকার এবং স্বার্থ রক্ষায় অব্যাহতভাবে সাহায্য করবে।

ওয়াং য়ি কাশ্মীরে সাম্প্রতিক উত্তেজনা বৃদ্ধি নিয়ে গভীরভাবে উদ্বিগ্ন বলেও উল্লেখ করা হয় চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিটিতে।

চীন মনে করে ভারতের এককভাবে নেয়া সিদ্ধান্তটি এই পরিস্থিতিকে আরও জটিল করবে এবং এটি বাস্তবায়ন করা উচিত হবে না।

দেশটি পাকিস্তান ও ভারতকে এককভাবে কোনও পদক্ষেপ না নিয়ে সহাবস্থানের ভিত্তিতে শান্তিপূর্ণভাবে একটি নতুন উপায়ে এই ঐতিহাসিক সমস্যাটি সমাধান করার আহ্বান জানায়।

বিবৃতিটিতে বলা হয়, চীন মনে করে কাশ্মীর বিতর্কটি জাতিসংঘের সনদ, সংস্থাটির সিকিউরিটি কাউন্সিলের রেজল্যুশন এবং দ্বিপক্ষীয় চুক্তির ভিত্তিতে সমাধান করতে হবে।

চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকের পর কুরেশি এক ভিডিও বিবৃতিতে জানান, তিনি ওয়াং য়ি এর সঙ্গে আড়াই ঘণ্টার বেশি সময় ধরে বৈঠক করেছেন।

তিনি বলেন, চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী জানিয়েছেন প্রেসিডেন্ট সি চিনপিংয়ের নির্দেশ অনুসারে ব্যস্ততা সত্ত্বেও বৈঠকটি করতে হলো। কারণ পাকিস্তান ও চীনের সম্পর্কটি ভিন্ন মাত্রার।

পাকিস্তানি পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, কাশ্মীর ইস্যুতে পাকিস্তানের অবস্থানকে পুরোপুরি সমর্থন করছে চীন। জাতিসংঘের সিকিউরিটি কাউন্সিলেও পাকিস্তানকে সমর্থন করবে চীন। চীন যে পাকিস্তানের বিশ্বস্ত বন্ধু, তা আরও একবার প্রমাণ করলো।

রাইজিংকক্স.কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।