টেকনাফ

টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধ’ দুই মাদক কারবারি নিহত

ছবি: রাইজিং কক্স

টেকনাফ (কক্সবাজার) সংবাদদাতা: কক্সবাজারের টেকনাফে আবারও পুলিশের সাথে মাদক কারবারীদের ‘কথিত’ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটেছে। এতে ঘটনায় আজিজ নামে এক মাদক কারবারী নিহত ও তিন পুলিশ সদস্য আহত হয়েছে। অপরদিকে হোয়াইক্যংয়ে এক মাদক কারবারিও নিহত হয়েছেন।

এই অভিযানের সত্যতা নিশ্চিত (ওসি) প্রদীপ কুমার দাশ জানান, ১৯ অক্টোবর রাতে মাদক কারবারে জড়িত টেকনাফ সদর ইউপি ডেইল পাড়া এলাকার সালেহ আহাম্মদের পুত্র চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী মোঃ আজিজ(২৩) কে আটক করতে সক্ষম হয় পুলিশ।
তারপর আটক আসামীর দেওয়া স্বীকারোক্তি অনুযায়ী ২০ অক্টোবর গভীর রাত দেড়টার দিকে, টেকনাফ সদর ইউনিয়ন মেরিন ড্রাইভ সড়ক সংলগ্ন মহেশখালীয়া পাড়া নৌকা ঘাট এলাকায়, গোপন স্থানে লুকিয়ে রাখা মাদক ও অস্ত্র উদ্ধার করার জন্য পুলিশের একটি দল অভিযানে গেলে। উৎপেতে থাকা মাদক কারবারে জড়িত অপরাধীরা পুলিশ সদস্যদের লক্ষ্য করে এলোপাতাড়ী গুলি বর্ষন শুরু করে।

পুলিশও আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি চালায়। উভয় পক্ষের গোলাগুলিতে এসআই কামরুজ্জামান, এএসআই মিশকাট উদ্দিন,কনেস্টেবল রুমান দাশ গুরুতর আহত হয় এবং গুলিবিদ্ধ হয় আটক মাদক কারবারী আজিজ। এরপর পুলিশ সদস্যরা তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষনা করে।

তিনি আরো জানান ঘটনাস্থল তল্লাশী করে দেশীয় তৈরী ১টি এলজি(অস্ত্র),৭রাউন্ড তাজা কার্তুজ,ও ৩ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করতে সক্ষম হয়।
নিহত মাদক কারবারী আজিজ দীর্ঘদিন ধরে মাদক ব্যাবসার সাথে জড়িত ছিল বলে জানান তিনি।

অপরদিকে হোয়াইক্যং কানজরপাড়া এলাকায় বিজিবির সাথে বন্দুকযুদ্ধে মো. রহিম উদ্দিন (৩৭) নামে অপর এক মাদক ব্যবসায়ী নিহত হয়েছে। সে মধ্যম কানজরপাড়া এলাকার মৃত আব্দুল জলিলের ছেলে।