টেকনাফরোহিঙ্গা সংকট

১২শ টাকার জন্য রোহিঙ্গার হাতে রোহিঙ্গা খুন

রাইজিং কক্স ডেস্ক : টেকনাফে পুর্বশত্রুতার জের ধরে রোহিঙ্গা সন্ত্রাসী দায়ের কোপে আবু তৈয়ব(৩৫) নামে এক রোহিঙ্গা যুবক নিহত। নিহত যুবক হচ্ছে উখিয়া বালুখালী রোহিঙ্গা ক্যাম্প এলাকার বাসিন্দা মোঃ আলমের পুত্র।

সে হোয়াইক্যং উনচিপ্রাং রোহিঙ্গা ক্যাম্প ডি-বল্কে বোনের বাসায় বসবাস করে আসছিল। খবর শুনে থানা পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে পৌঁছে মরদেহটি উদ্ধার করেছে।
২২ বছর বয়সী খুনি রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীকে ক্যাম্পে বসবাসরত রোহিঙ্গাদের সহযোগীতায় আটক করতে সক্ষম হয়েছে পুলিশ।

ধৃত রোহিঙ্গা যুবক হচ্ছে,টেকনাফ হোয়াইক্যং উনচিপ্রাং রোহিঙ্গা ক্যাম্প বল্ক-বি-৩ বাসিন্দা রশিদ আহাম্মদের পুত্র।

তথ্য সূত্রে জানা যায়, ৩ জানুয়ারী সন্ধা সাড়ে ৬টার দিকে পাওনা টাকা মাত্র ১২শ টাকার জন্য রোহিঙ্গা সন্ত্রাসী ছৈয়দুল আমিন একটি ধারালো দা দিয়ে আবু তৈয়বের গর্দানে কোপ মারে এরপর পার্শ্ববর্তী রোহিঙ্গা দৌড়ে এসে রক্তাক্ত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে ক্যাম্পে থাকা হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষনা করে।

এব্যাপারে টেকনাফ মডেল থানার (ওসি) প্রদীপ কুমার দাশ জানান, পূর্ব-শত্রুতার জের এবং অবৈধ টাকা লেনদেনকে কেন্দ্র এক রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীর দায়ের কোপে এক রোহিঙ্গা যুবক নিহত হয়েছে। খবর শুনে থানা পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে পৌছে স্থানীয়দের সহযোগীতায় অভিযুক্ত রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীকে আটক করেছে পুলিশ।

তিনি আরো বলেন, মাদক পাচার ও সন্ত্রাসী কর্মকান্ডে জড়িত রোহিঙ্গাদের আইনের আওয়তাই নিয়ে আসার জন্য পুলিশ সদস্যদের চলমান অভিযান অব্যাহত থাকবে। পাশাপাশি সন্ত্রাসী কর্মকান্ডে জড়িত অপরাধীদের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট আইনে মামলা রুজু করা হবে।

এদিকে মৃতদেহটি উদ্ধার করে ময়না তদন্ত রিপোর্ট তৈরী করার জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করার প্রক্রিয়া চলছে।

Comment here