রামুতে পাকাঘর পেল ভূমিহীন ৩০ পরিবার

খালেদ শহীদ, রামু : কক্সবাজারের রামুতে মুজিববর্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপহার ভূমিহীন ও গৃহহীন ৩০ পরিবার জমি ও সুন্দর স্বপ্নের পাকাঘর পেয়েছে। পর্যায়ক্রমে রামু উপজেলার ১৭৫ ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে প্রধানমন্ত্রীর উপহার জমিসহ পাকাঘর নির্মাণ করে দেয়া হবে। ইতিমধ্যে রামু উপজেলায় তালিকাভূক্ত পরিবারের জন্য ৬০টি দু’কক্ষের পাকাঘর নির্মাণকাজ সম্পন্ন করা হয়েছে। প্রথমধাপে ৩০ পরিবারকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপহার হিসেবে জমির কবুলিয়াত রেজিস্ট্রিকৃত দলিলসহ দু’কক্ষের স্বপ্নের ঘর হস্তান্তর করেছে উপজেলা প্রশাসন। শনিবার সকাল সাড়ে ১০টায় গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে মুজিববর্ষে ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে জমি ও ঘর প্রদান কর্মসূচির উদ্বোধনের পর, রামু উপজেলার ভূমিহীন ও গৃহহীন ৩০ পরিবারকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপহার হিসেবে জমির কবুলিয়ত মালিকানা দলিল হস্তান্তর করা হয়।

শনিবার (২৩ জানুয়ারি) দুপুর সাড়ে ১২টায় রামু উপজেলা পরিষদ ভিডিও কনফারেন্স কক্ষে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষে ওই ৩০ পরিবারের কাছে দলিল হস্তান্তর করেন, কক্সবাজার অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট মোহা. শাহজাহান আলী।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার প্রণয় চাকমার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত দলিল হস্তান্তর অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তৃতা করেন, রামু উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান সোহেল সরওয়ার কাজল, উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান আফসানা জেসমিন পপি, ভাইস চেয়ারম্যান মো. সালাহ উদ্দিন, সহকারি কমশিনার (ভূমি) মো. ছরওয়ার উদ্দিন, রামু থানা অফিসার ইনচার্জ মো. আজমিরুজ্জামান, উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. নোবেল কুমার বড়ুয়া প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন, ফতেখাঁরকুল ইউপি চেয়ারম্যান ফরিদুল আলম, জোয়ারিয়ানালা ইউপি চেয়ারম্যান কামাল শামশুদ্দীন আহমেদ প্রিন্স, ঈদগড় ইউপি চেয়ারম্যান ফিরোজ আহমদ ভূট্টো, রশিদনগর ইউপি চেয়ারম্যান এমডি শাহ আলম, কক্সবাজার জেলা পরিষদ সদস্য নুরুল হক, রামু উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক শামশুল আলম মন্ডল, রামু প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি খালেদ শহীদ ও নুরুল ইসলাম সেলিম, রামু উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক নীতিশ বড়ুয়া ও উপজেলা স্বেচ্ছা সেবকলীগের যুগ্ম-সম্পাদক মো. আবুবক্কর ছিদ্দিক সহ সাংকাদিক ও উপজেলা প্রশাসনের কর্মকর্তারা।

শনিবার প্রথমধাপে রামু উপজেলায় মুজিববর্ষ উপলক্ষে ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবার পূনর্বাসনের লক্ষ্যে জমির কবুলিয়াত রেজিস্ট্রিকৃত দলিলসহ দু’কক্ষের স্বপ্নের ঘর পেয়েছে, ঈদগড় ইউনিয়নের পূর্ব রাজঘাট এলাকার তপন কান্তি দে ও শিল্পী রাণী দে, চাতুই পাড়া এলাকার নাচিং প্রু, মং এছিং, থোয়াইছা ও মাচিং প্রু, ধুমছাকাটা এলাকার জানে আলম ও শাকেরা বেগম, ইছাক মিয়া ও ছমুদা খাতুন, করলিয়া মোরা এলাকার লাল মিয়া ও শামসুন্নাহার, নোয়াপাড়া এলাকার মছুদা বেগম, জালালের জুম এলাকার আলমাছ খাতুন, রেনুরকুল এলাকার নুরুল কবির ও নুর নাহার বেগম, পশ্চিম হাসনাকাটা এলাকার ফরিদুল আলম ও সাবেকুন্নাহার, ছগিরাকাটা এলাকার জাফর আলম ও ছাবিনা আক্তার, চরপাড়া এলাকার লায়লা বেগম, লেইঙ্গা পাড়া এলাকার মো. শাহাব উদ্দিন ও বেবী আক্তার, মুহাম্মদ করিম ও রহিমা বেগম। কচ্ছপিয়া ইউনিয়নের বড় জাংছড়ি এলাকার ছৈয়দ করিম ও লালু আকতার, মো. ছলিম উল্লাহ ও মোমেনা বেগম, বালুবাসা এলাকার ফরিদুল আলম ও সাবেকুন নাহার বেগম। গর্জনিয়া ইউনিয়নের নতুন তিতার পাড়া এলাকার আবদুস সালাম ও ফাতেমা বেগম, নিরঞ্জন চন্দ্র ধর ও রুবি রাণী ধর, স্কুলমুড়া এলাকার আবুল হাশেম ও মনোয়ারা বেগম, নুরুল ইসলাম ও রশিদা বেগম, ইদ্রিস মিয়া ও হামিদা বেগম, দক্ষিণ মৌলভী কাটা এলাকার আবদুল মালেক ও ছালেহা বেগম, ছাবুল হোছন ও আয়েশা বেগম। খুনিয়াপালং ইউনিয়নের মধ্যম ধেছুয়াপালং এলাকার সুলতান আহমদ ও রোকেয়া বেগম, ছাদিরকাটা এলাকার প্রতিবন্ধী আয়েশা বেগম। রাজারকুল ইউনিয়নের কাঠালিয়া পাড়া এলাকার কৃষ্ট দে ও লক্ষী দে। জোয়ারিয়ানালা ইউনিয়নের মইশকুম পাড়া এলাকার জাফর আলম ও খালেদা বেগমের পরিবার।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার প্রণয় চাকমা বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশত বার্ষিকী উপলক্ষে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার উপহার হিসেবে, প্রথম ধাপে রামু উপজেলার ৩০ পরিবারকে জমির কবুলিয়াত রেজিস্ট্রিকৃত দলিলসহ দু’কক্ষের স্বপ্নের পাকাঘর হস্তান্তর করা হয়েছে। প্রতিবন্ধী, বিধবা, ভিক্ষু সহ যাদের কোন ঘর ছিলো না, কোন জমি ছিলো না, এমন পরিবারের হাতেই মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর উপহার তোলে দেয়া হয়েছে। ভূমিহীন ও গৃহহীনদের জন্য একটি পাকাঘর নির্মাণ করতে ব্যয় হয়েছে ১ লক্ষ ৭১ হাজার টাকা। তিনি বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর স্বপ্ন মুজিববর্ষের কেউ গৃহহীন থাকবেনা। এ স্বপ্ন বাস্তবায়ন করতে পর্যায়ক্রমে রামু উপজেলার এগারো ইউনিয়নের আরও ১৪৫ ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে স্বপ্নের পাকাঘর সহ জমির কবুলিয়াত রেজিস্ট্রিকৃত দলিল হস্তান্তর করা হবে। স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের সহায়তায় আমরা চেষ্টা করছি, নিঃশ্ব মানুষগুলোই যেন প্রধানমন্ত্রীর উপহার জমি ও পাকাঘর পায়।

রাইজিংকক্স.কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।